1. md.zihadrana@gmail.com : admin :
পিরোজপুরে চলছে অনুমোদনহীন বহুতল ভবন তৈরি উৎসব ; ভবিষ্যৎ নগরায়ণ হুমকিতে - দৈনিক সবুজ বাংলাদেশ

১৯শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ । রাত ১২:০২ ।। গভঃ রেজিঃ নং- ডিএ-৬৩৪৬ ।।

সংবাদ শিরোনামঃ
পিরোজপুরে চলছে অনুমোদনহীন বহুতল ভবন তৈরি উৎসব ; ভবিষ্যৎ নগরায়ণ হুমকিতে

পিরোজপুরে চলছে অনুমোদনহীন বহুতল ভবন তৈরি উৎসব ; ভবিষ্যৎ নগরায়ণ হুমকিতে

 

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ
সরকারি বিধি বিধান আর নিয়ম নীতির তোয়াক্কা না করে পিরোজপুরের স্বরূপকাঠি পৌর এলাকায় অনুমোদনহীন মনগড়া নকশায় নির্মাণ করা হচ্ছে বহুতল ভবন। ফলে দূর্ঘটনার ঝুঁকিতে পড়ার আশংকা বাড়ছে আশপাশের প্রতিবেশীদের।

পিরোজপুরের স্বরূপকাঠি পৌরসভার ৩ নং ওয়ার্ড এলাকার জগন্নাথকাঠী মহল্লায় চলছে এই বহুতল ভবনের নির্মাণকাজ । এলাকার প্রভাবশালী মোঃ মঞ্জুর মোর্শেদ এই ভবন নির্মাণ করছেন। ইতিমধ্যে ভবনের প্রথম তলার বেজ ও কলম ঢালাইয়ের কাজ শেষ হয়েছে। এক তলার ছাদ ঢালাইয়ের বাকী কাজের প্রস্তুতি চলছে।

প্রতিবেশীদের আপত্তির কারণে মাঝখানে কিছুদিন কাজ বন্ধ রাখা হয়। এরপর অনেকটা তোড়জোড় করেই শুরু হয়েছে ভবন তৈরি কাজ।
প্রতিবেশীরা জানান, ৫ শতাংশ জায়গার ওপর মনগড়া নকশায় এই ৫তলা ভবনের নির্মাণকাজ শুরু হয়। এ জন্য কর্তৃপক্ষের অনুমোদন নেওয়া হয়নি,অথবা প্রয়োজন মনে করেননি। কারন প্রভাবশালী আর কালো টাকার মালিকেরা ক্ষমতার দাপটে বিশ্বাস রাখেন, তারা নিজের ভূলটা দেখতে পান না, হয়তো দেখতেই চান না।
অবৈধভাবে ভবন নির্মানকাজ বন্ধ রাখা প্রসঙ্গে গত ২৯/০৮/২২ ইং তারিখে স্বরূপকাঠি পৌরসভার নির্বাহী প্রকৌশলী মোঃ মহসিন স্বাক্ষরিত একটি নোটিশ ভবন মালিক মোঃ মঞ্জুর মোর্শেদ বরাবর প্রেরণ করা হয়েছে । ওই নোটিশে পরবর্তী সিদ্ধান্ত না দেওয়া পর্যন্ত সব ধরনের নির্মাণকাজ বন্ধ রাখারও অনুরোধ জানানো হয়।
গত ২৭/০৭/২২ ইং তারিখে বাদী মোঃ মুহীদুল ইসলামের মোকদ্দমা নম্বর ১১৯/২২ এর আলোকে মোঃ মঞ্জুর মোর্শেদ (রফিক) পিতাঃ মোঃ জ্ব্বার হাওলাদার, সাং- আরামকাঠী, পোস্ট -শান্তিরহাট, উপজেলা -নেছারাবাদ, জেলা-পিরোজপুরকে, ০৭ কার্য দিবসের মধ্যে কারন দর্শানোর নোটিশ প্রদান করেন অত্র পিরোজপুর সহকারী জজ আদালত । সকল আইনি প্রক্রিয়াকে বৃদ্ধাঙ্গুলী দেখিয়ে অবৈধভাবে ভবন নির্মান কাজ চালিয়ে যাচ্ছেন প্রভাবশালী মহলটি। তার এহেন কর্মকান্ডে প্রতি অসন্তোষ প্রকাশ করে স্থানীয়রা জানান,সংশ্লিষ্ট কতৃপক্ষ যদি কঠোরভাবে আইনি পদক্ষেপ গ্রহন না করেন তবে, ভবিষ্যতে অনুমোদনহীন বহুতল ভবনগুলো নগর পরিকল্পানায় সকলের গলার কাটা হয়ে উঠবে এবং সেই সাথে সবচেয়ে ঝুকিপূর্ণ নগরী হিসেবে বসবাসের অনুপোযোগী হয়ে উঠবে।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2021
ভাষা পরিবর্তন করুন »