1. md.zihadrana@gmail.com : admin :
রূপগঞ্জে মূর্তিমান আতংক ভূমিদস্যু ফয়েজ বাহিনীর খুঁটির জোর কোথায়? - দৈনিক সবুজ বাংলাদেশ

১৮ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ । দুপুর ১২:৫৬ ।। গভঃ রেজিঃ নং- ডিএ-৬৩৪৬ ।।

সংবাদ শিরোনামঃ
রূপগঞ্জে মূর্তিমান আতংক ভূমিদস্যু ফয়েজ বাহিনীর খুঁটির জোর কোথায়?

রূপগঞ্জে মূর্তিমান আতংক ভূমিদস্যু ফয়েজ বাহিনীর খুঁটির জোর কোথায়?

নিজস্ব প্রতিবেদক :

নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জ উপজেলার ভুলতা বাজারে চাঁদা না পাওয়ায় দুস্কৃতিকারী ও চিহিৃত ভুমিদস্যু মোঃ ফয়েজ ভূইয়া ও দুই ছেলে রিমন ভূঁইয়া, রুমান ভূঁইয়া সহ ২৫/৩০ জন সন্ত্রাসী বাহিনী নিয়ে মহামান্য আদালত’কে অবমাননা করে গত শুক্রবার (১১ নভেম্বর ২২) আনুষ্ঠানিক সকাল ১০ টায় এক ব্যবসায়ীর জমি দখলের চেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় ব্যবসায়ী ও এলাকাবাসীর মাঝে চরম ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে।

অনুসন্ধানে ও সরেজমিনে গিয়ে জানা যায়, ভুমিদস্যু মোঃ ফয়েজ ভূইয়া ও দুই ছেলে রিমন ভূঁইয়া, রুমান ভূঁইয়ার সন্ত্রাসী বাহিনী ক্ষমতার দাপট দেখিয়ে এলাকায় ত্রাসের রাজত্ব কায়েম করছে। ফয়েজ বাহিনীর অত্যাচারে রূপগঞ্জ সহ ভুলতা বাজারের সাধারণ জনগন অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছে এলাকাবাসী।এলাকায় ফ্যাক্টরি, ভবন নির্মাণ, কোম্পানি চালাতে হলে টাকা দিতে হবে বলে জানান ভূমিদস্যু ফয়েজ বাহিনী। জায়গার উপর ভবন নির্মাণ করতে গেলে ভুমিদস্যূরা অস্ত্রে, শস্ত্রে সজ্জিত হয়ে সম্পূর্ণ অন্যায় ভাবে জোরপূর্বক নির্মাণ কাজে বাঁধা দেয়। প্রয়োজনে খুন করার প্রকাশ্যে হুমকি দেয় বলে স্থানীয়দের অভিযোগ।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক তিনি বলেন, কিছু দিন পুর্বে আমরা পুরাতন জরাজীর্ণ ভবন ভেঙ্গে নতুন ভবন নির্মান কাজ শুরু করবো এ অবস্থায় ভুলতা বাজার এলাকার চিহিৃত দুস্কৃতিকারী ও ভূমিদস্যু মোঃ ফয়েজ ভূইয়া ও দুই ছেলে রিমন ভূঁইয়া, রুমান ভূঁইয়া সহ ২৫/৩০ জন সন্ত্রাসী বাহিনী এসে বাধা দিয়ে টাকা দাবী করে। তাদের চাহিদা মোতাবেক টাকা না পাওয়ায় চলমান কাজ বন্ধ করে দেয় ও এলাকায় কোম্পানি চালাতে হলে টাকা দিতে হবে বলে জানান। সারাক্ষন সন্ত্রাসী পাহারা বসিয়ে রাখে।

সিকিউরিটি গার্ড নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক তিনি বলেন, গত সোমবার (১৪ নভেম্বর ২২) আনুষ্ঠানিক বিকাল ৫ টায় কাঙ্খিত চাঁদার টাকা না পেয়ে ফয়েজ বাহিনী জায়গা খালি করার নির্দেশ দিয়ে যান।

এ ব্যাপারে ফয়েজ ভূঁইয়া সব অভিযোগ অস্বীকার করে তিনি বলেন, আমি ৯০ শতাংশ জমির মধ্যে ৬.৫০ শতাংশ জমি পাবো। গত শুক্রবার আপনি সম্পুর্ণ জমি দখলের চেষ্টা করছেন কি না জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমি কোর্টে মামলা করেছি। আমি আইনকে শ্রদ্ধা করি। আইনে জমি পেলে কোর্ট আমাকে বুঝিয়ে দিবে। আমি কেন জমি দখল করতে যাবো। ৬.৫০ জমির মধ্যে ৭ প্রকারের গাছ ছিলো তা কেটে দিয়েছেন তারা।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2021
ভাষা পরিবর্তন করুন »